• নরসিংদী
  • বুধবার, ৪ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ; ১৭ এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

Advertise your products here

Advertise your products here

নরসিংদী  বুধবার, ৪ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ;   ১৭ এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
website logo

মাধবদীতে বাড়িঘরে হামলা, ভাংচুর ও লুটপাট


জাগো নরসিংদী 24 ; প্রকাশিত: সোমবার, ১৮ সেপ্টেম্বর, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ, ০২:৩৫ পিএম
মাধবদীতে বাড়িঘরে হামলা, ভাংচুর ও লুটপাট

নিজস্ব প্রতিনিধি: নরসিংদীর মাধবদীতে পূর্ব শত্রুতার জের ধরে সহোদর ছোট ভাইয়ের বাড়িতে হামলা চালিয়ে বাড়ির দেয়াল, দরজা জানালা ভেঙ্গে ঘরে ঢুকে ছোট ভাইয়ের স্ত্রী মাহমুদা (৪৫), ছেলে জাবেদ (১৮) বৃদ্ধ বাবা আলমাছ মিয়াকে (৭২)মারধর করে চাবি ছিনিয়ে নিয়ে আলমারিতে রাখা জমি বিক্রির ১০ লক্ষ টাকা ও স্বর্ণালংকার লুট করে নিয়ে যাওয়ার অভিযোগ উঠেছে বড় ভাই মোহাম্মদ আলী, মোহাম্মদ আলীর ছেলে আয়নুল হক (২৫), আজিজুল (২৮), টুক্কা মিয়ার ছেলে নবী (৩০) ও লোকমান হোসেনের পালিত পুত্র আলমগীর(৩৫) সহ অজ্ঞাতনামা ২/৩ জনের বিরুদ্ধে।

রবিবার (১৭ সেপ্টেম্বর) বিকেলে নরসিংদীর মাধবদী থানাধীন নুরালাপুর ইউনিয়নের নওপাড়া কুয়েতি মসজিদ সংলগ্ন এলাকার আলমাছ মিয়ার ছেলে আসাদের বাড়িতে এঘটনা ঘটে।

পরে উপায়ন্তর না পেয়ে ট্রিপল নাইনে কল দিলে পুলিশ এসে তাদের উদ্ধার করে।

এঘটনায় ওইদিন রাতেই ভুক্তভোগী আসাদ মিয়া ৫ জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত ২/৩ জনকে আসামি করে মাধবদী থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন। 
বিবাদীরা এতে ক্ষিপ্ত হয়ে পরদিন সোমবার (১৮ সেপ্টেম্বর) ভোরে পুনরায় বাদী আসাদ মিয়ার বোনের বাড়িতে হামলা চালায়।

এসময় তারা বাদীর বোনকে বেধড়ক পিটিয়ে আহত করে এবং তার ঘরের আলমারি ভেঙ্গে নগদ টাকা, স্বর্ণালংকার ও জমির দলিল পত্র লুট করে নিয়ে যায়। 
ভুক্তভোগী আসাদ মিয়া বলেন, কিছুদিন পূর্বে আমি আমার জমি বিক্রি করে টাকা পাই। পরে একই এলাকার লোকমান হোসেনের পালিত পুত্র আলমগীর আমার কাছ থেকে ৫০ হাজার টাকা চাঁদা দাবি করে।
আমি তাকে টাকা না দেওয়ায় সে আমার আপন বড় ভাই মোহাম্মদ আলী, মোহাম্মদ আলীর ছেলে আয়নুল হক (২৫), আজিজুল (২৮), টুক্কা মিয়ার ছেলে নবী (৩০) ও লোকমান হোসেনের পালিত পুত্র আলমগীর(৩৫) সহ অজ্ঞাতনামা ২/৩ জনের একটি দল ধাঁরালো দেশীয় অস্ত্র, লোহার কুড়াল, লোহার পাইপ, লোহার রড ও লাঠিসোঠা নিয়ে বাড়িঘরে হামলা চালিয়ে বাড়ির দেয়াল, দরজা জানালা ভেঙ্গে ঘরে ঢুকে আমার স্ত্রী মাহমুদা (৪৫), ছেলে জাবেদ (১৮), আমার বাবা আলমাছ মিয়াকে (৭২)মারধর করে চাবি ছিনিয়ে নিয়ে আলমারিতে রাখা জমি বিক্রির ১০ লক্ষ টাকা ও স্বর্ণালংকার লুট করে নিয়ে যায়।

এঘটনায় আমি তাদের ৫ জনের নামে মাধবদী থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করি। এতে করে তারা ক্ষিপ্ত হয়ে আজ ভোরে আমার বোনের বাড়িতে হামলা চালিয়ে তাকে মারধর করে তার বাড়িঘরে লুটপাট করে। বর্তমানে আমার বোন নরসিংদী সদর হাসপাতালে মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়ছে।

তিনি আরো বলেন গতকাল অভিযোগের পর থানা থেকে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নিলে আজকের এ ঘটনা ঘটতো না । বর্তমানে আমি আমার পরিবার নিয়ে চরম নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছি। যে কোন সময় তারা আবারও হামলা করতে পারে তাই অপরাধীদের দ্রুত গ্রেফতার করে আইনের আওতায় এনে তাদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান তিনি।

নুরালাপুর ইউনিয়ন পরিষদ ৯ নং ওয়ার্ড ইউপি সদস্য কামাল হোসেন ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, তাদের পারিবারিক জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে এ ঘটনা ঘটেছে। এঘটনায় মাধবদী থানা পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে বলে ও জানান তিনি।

মাধবদী থানার এসআই রিফাত বলেন, ট্রিপল নাইনে কল করে ভুক্তভোগী আসাদ মিয়ার পরিবার পুলিশের সহায়তা চাইলে আমরা ঘটনাস্থলে গিয়ে তাদের উদ্ধার করি কিন্তু ততক্ষণে বিবাদীরা পালিয়ে যায়। পরে আসাদ মায়াকে থানায় অভিযোগ দেওয়ার পরামর্শ দিলে রাতেই তিনি থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। এব্যাপারে তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে ও জানান তিনি।

নরসিংদীর খবর বিভাগের জনপ্রিয় সংবাদ