• নরসিংদী
  • রবিবার, ১৯ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ; ০৩ মার্চ, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

Advertise your products here

Advertise your products here

নরসিংদী  রবিবার, ১৯ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ;   ০৩ মার্চ, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
website logo

নরসিংদীতে সুমন হত্যা : বিচার দাবিতে মানববন্ধন


জাগো নরসিংদী 24 ; প্রকাশিত: মঙ্গলবার, ০৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ০৭:৪২ পিএম
নরসিংদীতে সুমন হত্যা : বিচার দাবিতে মানববন্ধন

স্টাফ রিপোর্টার: নরসিংদীতে সুমন হত্যার সাথে জড়িতদের দ্রুত গ্রেপ্তার করে বিচারের দাবিতে মানববন্ধন করেছে তার পরিবার ও গ্রামবাসি। মঙ্গলবার (৬ ফেব্রুয়ারি) বেলা ১১ টার দিকে জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সামনে এই মানববন্ধন করে পরিবারের লোকজন।

মানববন্ধনে নিহত সুমনের পরিবার অভিযোগ করেন বালু ব্যবসাকে কেন্দ্র করে গত ২ ফেব্রুয়ারী (শুক্রবার) রাতে শহরতলীর পশ্চিম ঘোড়াদিয়ার মোল্লাবাড়ি মসজিদের সামনে নৃশংসভাবে কুপিয়ে সুমনকে হত্যা করে। স্থানীয় ইউপি সদস্য জুয়েল মিযা উরফে কাটলী জুয়েলের নেতৃত্বে তার সন্ত্রাসী বাহিনী দেশীয় অস্রসস্রে স্বজ্জিত হয়ে কুপিয়ে সুমনকে হত্যা করে। মানববন্ধনে হত্যাকারিদের অচিরেই গ্রেপ্তার করে দ্রুত আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তির দাবি জানায় সুমনে পরিবার ও গ্রামবাসি।

নিহত সুমন মিয়া একই এলাকার ছোবান মিয়ার ছেলে। এদিকে হত্যার ঘটনায় সুমনের বাবা বাদি হয়ে ২ ফেব্রুয়ারী (শুক্রবার) রাত ১২ টার দিকে ইউপি সদস্য জুয়েল মিয়াকে প্রধান আসামি করে ১০ জনের নাম উল্লেখসহ ৪/৫ অজ্ঞাত রেখে নরসিংদী সদর মডেল থানায় মামলা দায়ের করেন। মামলার পর বিভিন্ন জায়গায় অভিযান চালিয়ে মো: ইমরুর কায়েছ মিশু, মো: নাঈমুর রহমান পুলক ও সজল নামে ৩ জনকে গ্রেপ্তার করেছে নরসিংদী সদর মডেল থানা পুলিশ।

নিহতের মা মনোয়ারা বেগম আজহারি করে কান্না জরিত কণ্ঠে বলেন, আমার সুমনকে জারা মেরেছে আমি তাদের বিচার চাই।

হিহত সুমনের স্ত্রী নিপা বেগম বলেন, আর কোন স্ত্রীকে যেন বিধবা হতে না হয, না হারাতে হয় কোন সন্তানকে তার বাব। তাই আমার স্বামীকে হত্যার সাথে জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি চাই। এমন শাস্তি দেওয়া হোক এটা যেন সমাজে উদাহরণ হয়ে থাকে।

উল্লেখ্য, দাসপাড়া এলাকার একটা খানকা শরীফ থেকে সঙ্গীতার দিকে ফিরছিল কালা সুমন ও রানা। পশ্চিম ঘোড়াদিয়ার মোল্লাবাড়ি মসজিদের সামনে আসলে চিনিশপুর ইউনিয়ন পরিষদের ৯ নং ওয়ার্ডের সদস্য মো: জুয়েল মিয়া ও তার ভাই সোহেল, খায়রুল ও রাজ্জাকসহ ৫/৬ জন অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী তার গতিরোধ করে। এসময় সুমনকে সন্ত্রাসীরা চাপাতি দিয়ে এলোপাথাড়ি কুপিয়ে আহত করে এবং রানা আহত অবস্থায় দৌড়ে পালিয়ে যেতে সক্ষম হয়। সুমনের ডাক চিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে আসলে হামলাকারীরা তাকে ফেলে রেখে চলে যায়।

পরে এলাকাবাসী তাকে উদ্ধার করে নরসিংদী সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে শারীরিক অবস্থার অবনতি দেখে কর্তব্যরত চিকিৎসক উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করলে সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাত দুইটার দিকে সুমন মারা যায়।

নরসিংদী সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) তানভীর আহমেদ জানান, সুমনকে হত্যার ঘটনায় বিভিন্ন জায়গায় অভিযান চালিয়ে তিনজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে এবং অন্যান্য আসামিদের গ্রেপ্তারে পুলিশি অভিযান অব্যাহত রয়েছে।
 

নরসিংদীর খবর বিভাগের জনপ্রিয় সংবাদ