• নরসিংদী
  • বৃহস্পতিবার, ১৩ আশ্বিন ১৪২৯ বঙ্গাব্দ; ২৯ সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

Advertise your products here

Advertise your products here

নরসিংদী  বৃহস্পতিবার, ১৩ আশ্বিন ১৪২৯ বঙ্গাব্দ;   ২৯ সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
website logo

নরসিংদী আ'লীগের সম্মেলনকে ঘিরে সরব ফেইসবুক; নিন্দার ঝড়


জাগো নরসিংদী 24 ; প্রকাশিত: রবিবার, ১৮ সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ১১:৫৩ পিএম
নরসিংদী আ'লীগের সম্মেলনকে ঘিরে সরব ফেইসবুক; নিন্দার ঝড়
নিচে বসে আছে গণমাধ্যমকর্মীরা

স্টাফ রিপোর্টার: নরসিংদীতে সরব রয়েছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক। নরসিংদী জেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলনকে ঘিরে তোলপাড় সামাজিক এই যোগাযোগ মাধ্যমটি। 

আজ রবিবার (১৮ সেপ্টেম্বর) সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকের পাতা উল্টালেই চোখের সামনে ভেসে আসে নরসিংদী জেলা আওয়ামী লীগের নবগঠিত আংশিক কমিটির সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদককে ফুল দিয়ে বরণ করে নেওয়া ও শুভেচ্ছা জানানোর দৃশ্য। তাদের সমর্থকদের শুভেচ্ছা আর শুভকামনায় ছেয়ে গেছে গোটা ফেসবুকের পাতা।

পাশাপাশি সম্মেলনে সংবাদ সংগ্রহ করতে আসা প্রিন্ট ও ইলেকট্রিক  মিডিয়ার কর্মীদের সম্মেলনের আয়োজক কমিটি অবমূল‍্যায়ন করায় জেলার সাংবাদিক সমাজ ও সচেতন মহলে উঠে 
নিন্দার ঝড়।

দীর্ঘ সাড়ে ৭ বছর পর গতকাল শনিবার অনুষ্ঠিত হয়ে গেল নরসিংদী জেলা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন। লাখ লাখ টাকা ব‍্যয়ে জাকজমক পূর্ণ আয়োজনের মধ‍্যদিয়ে সম্পন্ন হয়েছে এ সম্মেলন। জাকজমকপূর্ণ এই আয়োজনের শেষ সময়ে তৃণমূল নেতাকর্মীরা আশাহত মন নিয়ে  সম্মেলন স্থল থেকে ফিরে গেছে।  

নরসিংদীর মোসলেহ উদ্দিন ভূঁইয়া স্টেডিয়াম মাঠের অনুষ্ঠিত হয়ে যাওয়া জেলা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন শেষে, সকলে স্তব্ধ হতাশ। তৃণমূল পর্যায়ের নেতাকর্মীদের আশা-আকাঙ্ক্ষা  ভেঙ্গে চুরমার। কিন্তু কারোই কিছু বলার মত সেই ভাষা বা সাহস ছিল না। আর তা হতে পারে আশাভঙ্গ হওয়ায় বা পেশীশক্তির ভয়ে। 

সম্মেলনকে ঘিরে জেলা জুড়ে নেতাকর্মীদের মধ্যে ছিলো ব্যাপক উচ্ছ্বাস। সম্মেলনের শেষ ভাগে এসে পূর্বের কমিটির ভারপ্রাপ্ত সভাপতি জিএম তালেব হোসেন ও  ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক পীরজাদা মোহাম্মদ আলী এই দুজনেরই  ভার মুক্ত করে দিয়ে  সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক করে আংশিক কমিটি ঘোষণা দিলে নেতাকর্মীদের সেই উচ্ছ্বাস ধুলায় মিশিয়ে যায়।  তৃণমূলের মতে কেন্দ্রীয়  সাধারণ সম্পাদকের  সাথে ভারচুয়াল মিটিং করে তথাকথিত কিছু কেতাদুরস্ত ভাবনার পরিবর্তন ছাড়া এই সম্মেলনে কিছুই হলো না, বলে সকলের আফসোস!

এদিকে মোসলেহ উদ্দিন ভূঁইয়া স্টেডিয়াম মাঠের বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেকট্রিক মিডিয়ার গণমাধ‍্যমকর্মীরা সম্মেলনের সংবাদ, ভিডিও ও স্থির চিত্র ধারণ করতে আসলে দেখেম সেখানে তাদের জন‍্য নির্ধারিত কোন আসন রাখা হয়নি। সাংবাদিক প্লে কার্ড লাগানো নির্ধারিত আসন গুলোতে সম্মেলনের শৃঙ্খলা রক্ষার দায়িত্বে থাকা স্বেচ্ছাসেবীরা দখল করে বসে ছিল।

এ অবস্থায় সম্মেলনের আয়োজক কমিটির কাছে গণমাধ্যম কর্মীরা তাদের বসার স্থানের বিষয়ে জানতে চাইলে সামনের সারিতে মঞ্চের বাম পাশে মাটিতে লাল রঙের মকমলের কার্পেট পাতা স্থানটিতে গণমাধ্যম কর্মীদের বসার জন‍্য দেখিয়ে দেয়।

অজ্ঞতায় গণমাধ্যম কর্মীরা সংবাদের গুরুত্ব বিবেচনা করে সেখানেই বসে তাদের সংবাদ সংগ্রহের কাজ সম্পন্ন করেন। সম্মেলন শেষে রাতে গণমাধ্যম কর্মীদের মাটিতে বসা এ দৃশ‍্যের ভিডিও ও স্থিরচিত্র সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে ছড়িয়ে পড়লে অল্প সময়ের তা ভাইরাল হয়। রাষ্ট্রের চতুর্থ  স্তম্ভ হিসেবে আখ‍্যায়িত গণমাধ‍্যম কর্মীদের মাটিতে বসা এদৃশ‍্য জেলার সাংবাদিক সংগঠনসহ  সাধারণ গণমাধ‍্যম কর্মী ও সচেতন সমাজকে নাড়া দেন। জেলা জুড়ে নিন্দার ঝড় উঠে। এর প্রতিক্রিয়া ও নিন্দা জানিয়ে জেলার কয়েকটি মিডিয়ায় কালো পতাকা প্রদর্শন করা হয়।
 

গণমাধ্যম বিভাগের জনপ্রিয় সংবাদ